ভেঙে ফেলা হবে ইউরোপের একমাত্র জগন্নাথ মন্দির, জেনেনিন কেন?

যুক্তরাজ্যের সমারসেটের বাথ শহরে অবস্থিত ইউরোপের একমাত্র শ্রী জগন্নাথ মন্দিরটি ভেঙে ফেলা হবে। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

২০২১ সালে অস্থায়ীভিত্তিতে সাবেক কালভারহে স্কুলে মন্দিরটি চালু করা হয়। এটি বাথ শহরের একমাত্র মন্দির ছিল।

কিন্তু বাথ এবং নর্থইস্ট সমারসেট কাউন্সিল নতুন দুটি স্কুল বানানোর জন্য পুরোনো স্কুলটি ভেঙে ফেলার পরিকল্পনা করছে।

স্কুলে থাকা মন্দিরটি নিয়ে কী পরিকল্পনা রয়েছে সেটি নিরূপণে মন্দির কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করার কথা জানিয়েছেন কাউন্সিলের ক্যাবিনেট সদস্য পল রোপার।

তিনি বলেছেন, “আমরা মন্দিরের সংবেদনশীলতার বিষয়টি বুঝতে পারছি। কিন্তু শিক্ষার জন্য ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তার গুরুত্ব আরও বেশি।”

এই ক্যাবিনেট সদস্য জানিয়েছেন, সমারসেটের বেশিরভাগ স্কুল ভবন ২০২৫ সালের শুরুর দিকে ভেঙে ফেলা হবে। তবে যেসব স্কুলে মন্দির রয়েছে সেগুলো ভাঙতে ২০২৫ সালের জুলাই পর্যন্ত অপেক্ষা করা হবে। যেন মন্দিরগুলো অন্যত্র সরিয়ে নেওয়া যায়।

বিবিসি জানিয়েছে, বাথ শহরের একমাত্র মন্দির হওয়ার পাশাপাশি— এটি ইউরোপে দেবতা জগন্নাথকে উৎস্বর্গ করে তৈরি করা একমাত্র মন্দির।

মন্দিরটির মুখপাত্র অশীষ রাজহংস বিবিসিকে বলেছেন, “এটি গত তিন বছর ধরে আমাদের বাড়ি।”

তিনি জানিয়েছেন, মন্দিরটি স্থানান্তরে উপযুক্ত জায়গা পেতে হয়ত ছয় মাস সময় লাগতে পারে। তিনি সতর্কতা দিয়ে বলেছেন, কিছুদিন হয়ত মন্দিরটি পুরোপুরি বন্ধও থাকতে পারে।

তিনি বলেছেন, “যদি দ্রুত সময়ের মধ্যে কোনো জায়গা না পাই তাহলে বিষয়টি আমাদের জন্য কষ্টের হবে। আমরা জানতাম এক সময় জায়গাটি আমাদের ছেড়ে দিতে হবে। কিন্তু এখন সময়টা উপযুক্ত নয়। মন্দিরটি দেখতে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে মানুষ আসতেন।”

কাউন্সিলের ক্যাবিনেট সদস্য পল রোপার জানিয়েছেন, নতুন স্কুল তৈরির জন্য পুরোনো সব স্কুল ভেঙে ফেলা হবে না। কিছু স্কুল আবাসিক ভবন এবং অন্যান্য কাজে ব্যবহার করা হবে। মন্দিরটি সেখানেও স্থানান্তর করা হতে পারে। তবে এ ব্যাপারে তারা আলোচনা করবেন।

সূত্র: বিবিসি

Related Posts

© 2024 Tech Informetix - WordPress Theme by WPEnjoy