বোরকা পরে গার্লস হোস্টেলে প্রেমিক! নজরে আসতেই মারধর এলাকাবাসীর

প্রেমিকার সঙ্গে দেখার করার সাধ হয়েছিল। কিন্তু সে থাকে গার্লস হোস্টেলে। তাই বোরকা পরে মেয়ে সেজে ভেতরে ঢোকার পরিকল্পনা করেছিলেন প্রেমিক। কিন্তু হিসাবের সামান্য গড়মিলে ভেস্তে গেলো পুরো পরিকল্পনা। কেবল জুতার কারণে এলাকাবাসীর নজরে পড়ে যান প্রেমিক। এরপর মারধর তো আছেই, শেষপর্যন্ত ঠাঁই হয়েছে জেলে। সম্প্রতি এ ঘটনা ঘটেছে পশ্চিমবঙ্গের মুর্শিদাবাদে।

জানা যায়, প্রেমিকার সঙ্গে দেখা করতে শিয়ালদা থেকে ট্রেনে চড়ে কাকডাকা ভোরে বহরমপুরে পৌঁছে গিয়েছিলেন প্রেমিক। এরপর স্টেশন থেকে সোজা চলে যান প্রেমিকার গার্লস হোস্টেলে। বোরকা পরে প্রেমিকার বান্ধবী সেজে ভেতরে ঢুকতে চাচ্ছিলেন। তখনই বিষয়টি নজরে পড়ে এলাকাবাসীর।

তাদের সন্দেহ আরও বাড়িয়ে দেয় যুবকের জুতা। মূলত গায়ে বোরকা পরলেও জুতা বদলানোর কথা বেমালুম ভুলে গিয়েছিলেন প্রেমিক। বোরকার নিচ দিয়ে সহজেই ছেলেদের জুতা দেখা যাচ্ছিল। আর তাতেই স্থানীয়দের হাতে ধরা পড়ে যান তিনি।

মেয়ে সেজে গার্লস হোস্টেলে ঢোকার চেষ্টা করায় যুবকের ওপর চড়াও হয় এলাকাবাসী। খানিকটা মারধরের পর খবর দেওয়া হয় বহরমপুর থানায়। পরে পুলিশ গিয়ে তাকে আটক করে নিয়ে যায়।

মাস দেড়েক আগে বহরমপুরে মেস বাড়ির সামনে সাবেক প্রেমিকের হাতে খুন হন মালদার কলেজছাত্রী সুতপা চৌধুরী। তারপর থেকেই শহরের হোস্টেল-মেসগুলোতে নিরাপত্তা বাড়ানো হয়েছে। আর তার মধ্যে এ ধরনের ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়েছে গোটা এলাকায়।

Related Posts

© 2024 Tech Informetix - WordPress Theme by WPEnjoy