পল্লবী ও তার বয়ফ্রেন্ড স্বামী-স্ত্রী পরিচয় দিয়ে থাকতেন ভাড়া ফ্ল্যাটে, উঠে এলো আরও তথ্য

বাংলা সিরিয়ালের জনপ্রিয় মুখ পল্লবী দের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ সকালে অভিনেত্রীর বাড়ি থেকে তাঁর মৃত দেহ উদ্ধার হয়।
গড়ফার বাড়ি থেকে উদ্ধার সিরিয়াল অভিনেত্রী পল্লবী দের ঝুলন্ত দেহ। গড়ফার গাঙ্গুলিপুকুর এলাকায় বাড়ি। পরিবারের দাবি, আজ সকালে অভিনেত্রীকে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পাওয়া যায়। অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা রুজু করেছে গড়ফা থানার পুলিশ।

খবরে প্রকাশ, আজ সকাল সাড়ে ৯টা নাগাদ গড়ফা থানার অন্তর্গত গাঙ্গুলিপুকুরের কাছে ‘আমি সিরাজের বেগম’ ও ‘মন মানে না’খ্যাত পল্লবী দের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। পরিবারের সদস্যরাই প্রথম তাঁকে এমন অবস্থায় দেখতে পায়। পরে তাঁকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসকেরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। তবে তাঁর মৃত্যুর কারণ জানা যায়নি।

ছোটপর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী ছিলেন পল্লবী দে। একাধিক চ্যানেলের একাধিক সিরিয়ালের মুখ ছিলেন তিনি।

প্রয়াত অভিনেত্রীর বন্ধু তথা সহ অভিনেতা সায়ক চক্রবর্তী বলেন, ‘পল্লবীর সঙ্গে ওর বয়ফ্রেন্ডের সমস্যা ছিল। কী প্রবলেম ছিল জানি না। শুধু জানি ও খুব ভালো মেয়ে এটা করতে পারে না। ওদের দুজনের মধ্যেই সমস্যা ছিল। দুদিন আগে আমরা একসঙ্গে খেতে গিয়েছিলাম, সেদিন সমস্যার কথা বলছিল,ও কাঁদছিল। আমি বলেছিলাম তোরা একসঙ্গে না থাকতে পারলে ব্রেকআপ করে নে। ওর এই মৃত্যু কিছুতেই মেনে নিতে পারছি না।’

কে ছিলেন পল্লবীর বয় ফ্রেন্ড? পুলিশি তদন্তে জানা যায়, পল্লবীর লিভ ইন পার্টনারের নাম সাগ্নিক চক্রবর্তী। গত মাসে অর্থাৎ এপ্রিলের শেষের দিকে পল্লবী ও সাগ্নিক স্বামী স্ত্রী হিসেবে একটি আবাসন ভাড়া নেন। ওই আবাসনের সকলেই জানতেন এরা স্বামী স্ত্রী, যদিও পল্লবী বিয়ে করেননি সাগ্নিক চক্রবর্তীকে। তারা একসঙ্গে লিভ ইন করতেন। কিন্তু, ঘটনাচক্রে গতকাল রাতে তারা দুজন আলাদা ঘরে ঘুমোন এবং সকালেই অভিনেত্রীর মৃতদেহ উদ্ধার হয়।

Related Posts

© 2024 Tech Informetix - WordPress Theme by WPEnjoy