দিল্লির ৮০ শতাংশ নির্মাণ-ই বেআইনি, পুরো দিল্লি ভেঙে ফেলবেন? গেরুয়া শিবিরের উদ্দেশ্যে প্রশ্ন কেজরিওয়ালের

কিছুদিন ধরেই দিল্লিতে অবৈধ নির্মাণ বুলডোজার দিয়ে গুড়িয়ে দিচ্ছে দিল্লির বিজেপি শাসিত পুরসভাগুলি৷ এ নিয়ে আগেও বিরোধিতায় সুর চড়িয়েছে আম আদমী পার্টি৷ এবার দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল বিজেপি দলের উদ্দেশ্য প্রশ্ন তুললেন, দিল্লির ৮০ শতাংশ নির্মাণ-ই বেআইনি, পুরো দিল্লি ভেঙে ফেলবেন?

কী বলছেন দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী?
এদিন বৈঠকে জাতীয় রাজধানী শহরে জগাখিচুড়ি এবং বেআইনি সম্পত্তির জন্য এমসিডিতে বিজেপির ১৫ বছরের শাসনকে কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছেন অরবিন্দ। সোমবার তিনি বলেছেন, দিল্লি পরিকল্পিতভাবে তৈরি করা হয়নি। দিল্লির ৮০ শতাংশেরও বেশি নির্মাণকে বেআইনি বলা যেতে পারে এবং দখল করা যায়। তার মানে কি আপনি দিল্লির ৮০ শতাংশ ধ্বংস করবেন? একটি অনলাইন ব্রিফিংয়ে গেরুয়া শিবিরের উদ্দেশ্যে এই প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়েছেন অরবিন্দ।

দিল্লি সব অবৈধ নির্মাণ ভাঙা হলে তা ভারতের সবচেয়ে বড় ধ্বংসলীলা হবে
এমসিডির নিন্দা করে কেজরিওয়াল আরও বলেন, যদি বুলডোজারগুলি দিল্লিতে ৬৩ লক্ষ লোকের দোকান এবং বাড়িগুলি ভেঙে দেয় তবে এটি স্বাধীন ভারতে ‘সবচেয়ে বড় ধ্বংস’ হবে। তিনি বলেন, প্রায় ৫০ লাখ লোক অননুমোদিত কলোনিতে ১০ লাখ ‘ঘুগি’তে থাকে এবং এমন লাখ লাখ লোক রয়েছে যারা বাড়ি পরিবর্তন করেছে বা এমন কিছু করেছে যা মূল নকশার সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়। নকশা দেখে বেআইনি চিহ্নিত করতে গেলে ৬৩ লক্ষ মানুষের বাড়ি এবং দোকানে বুলডোজার চালাতে হবে৷

যদিও তিনি একই সঙ্গে জুড়ে দিয়েছেন যে, আম আদমি পার্টিও দখলদারিত্বের বিরুদ্ধে এবং দিল্লিকে সুন্দর দেখতে চায়। তবে ৬৩ লক্ষ মানুষের বাড়িঘর এবং দোকান ভাঙা সহ্য করা হবে না। তিনি জনগণকে আশ্বস্ত করেছেন যে আম আদমী পার্টি এই দখল জনিত সমস্যা সমাধান করবে এবং অননুমোদিত কলোনিতে বসবাসকারী লোকেরা সঠিক মালিকানা ও অধিকার পাবে।

Related Posts

© 2024 Tech Informetix - WordPress Theme by WPEnjoy